ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ডের বিধান রাখতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন-২০০০ সংশোধন করতে যাচ্ছে সরকার।

আইন শৃংখলা

ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ডের বিধান রাখতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন-২০০০ সংশোধন করতে যাচ্ছে সরকার।

( চিফ রিপোর্টার }

দৈনিক সত্যেরবাণী  : সাম্প্রতিক সময়ে ধর্ষণের ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় কঠোর ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে সরকার। এ লক্ষ্যে ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা যাবজ্জীবনের পরিবর্তে মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে আগামীকাল সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন মন্ত্রিসভায় এ সংক্রান্ত খসড়া প্রস্তাব উপস্থাপন করা হবে।

এ বিষয়ে রোববার আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনার পর আইন সংশোধন করে ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। সংশোধিত আইনের খসড়া মন্ত্রিসভার বৈঠকে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হচ্ছে।

 

আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সূত্র জানিয়েছে, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন অনুযায়ী, ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি যাবজ্জীবন কারাদণ্ড। দেশে সম্প্রতি কয়েকটি ধর্ষণের ঘটনার পর ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড করার দাবিতে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ আন্দোলন করছেন। এ কারণে সরকার ধর্ষণের শাস্তি বাড়ানোর পদক্ষেপ নিয়েছে।

 

মহিলা ও শিশুবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা সম্প্রতি বলেন, ধর্ষণ প্রতিরোধ ও প্রতিকারে সরকার তৎপর। ধর্ষকের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ডই হবে।

 

প্রসঙ্গত, দেশের বিভিন্ন স্থানে নারী নির্যাতন ও ধর্ষণের ঘটনা হঠাৎ করেই বেড়ে যায়। এর মধ্যে সিলেট এমসি কলেজ হোস্টেলে বর্বরোচিত সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। এরপর গত ৪ অক্টোবর নোয়াখালীতে গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের এক ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। ওই ঘটনা জানাজানির পর ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে রাজধানীসহ সারাদেশে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে। অধিকাংশ মহল থেকেই ধর্ষণকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ডের বিধান রাখার দাবি জানানো হয়। সে প্রেক্ষাপটেই সরকার কঠোর এ সিদ্ধান্ত গ্রহণের উদ্যোগ নিয়েছে।

 

https://www.youtube.com/channel/UCZU8dgpNkIEui69YsizKlIQ  ?

https://www.facebook.com/dailysotterbani/

SHARE

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *